বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০১৯, ০১:১২ পূর্বাহ্ন

নওগাঁ-৩: তুমুল লড়াই হবে নৌকা ও ধানের শীষের প্রবীন-নবীনের মধ্যে

নওগাঁ প্রতিনিধি:

নওগাঁ-৩ (বদলগাছী-মহাদেবপুর) আসনে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মূলত তুমুল লড়াই হবে নৌকা প্রার্থী প্রবীন ও ধানের শীষের নবীনের মধ্যে। এ আসনে মোট ৫জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দিতা করছেন।

২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি নির্বাচন ছাড়া অতীতে এখানে নৌকা আর ধানের শীষ প্রতীকের মধ্যেই মূল প্রতিদ্বন্দিতা হয়েছে। এবারও তার ব্যতিক্রম কিছু ঘটবে না। এবার ধানের শীষ প্রতীক পেয়েছেন তরুন প্রার্থী নতুন মুখ সাবেক ডেপুটি স্পিকার মরহুম আখতার হামিদ সিদ্দিকী নান্নুর ছেলে পারভেজ আরেফিন সিদ্দিকী জনি। আর এ আসনে বর্তমান সাংসদ ছলিমউদ্দিন তরফদার সেলিম প্রথম নৌকা প্রতীক নিয়ে ভোটযুদ্ধে নেমেছেন।

এর আগে তিনি ২০১৪ সালের নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়ে ‘কলস’ প্রতীক নিয়ে সাংসদ নির্বাচিত হয়েছিলেন। নৌকা প্রতীকের প্রার্থী ছলিম উদ্দিন তরফদারের ছেলের বয়সী সমতুল্য ধানের শীষের প্রার্থী পারভেজ আরেফিন সিদ্দিকী জনি। এ কারণে এই নির্বাচনকে নবীণ-প্রবীণের লড়াই হিসেবে দেখছেন ভোটারেরা।

এ আসনে মোট ভোটার ৩ লাখ ৮০ হাজার ২৮২ জন। এর মধ্যে মহাদেবপুর উপজেলায় ২ লাখ ২২ হাজার ৫’শ ১২ জন এবং বদলগাছী উপজেলায় ১ লাখ ৫৭ হাজার ৭শ ৭০ জন ভোটার রয়েছেন। বদলগাছী ও মহাদেবপুর উপজেলা মিলে মোট ১৮ টি ইউনিয়ন পরিষদ। এরমধ্যে বদলগাছী উপজেলায় ৮টি ও মহাদেবপুর উপজেলায় ১০টি ইউনিয়ন পরিষদ। ধান-চালের জন্য বিখ্যাত মহাদেবপুর উপজেলা আর সবজির জন্য বিখ্যাত বদলগাছী উপজেলা।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে ঘিরে প্রথম দিকে লোকজনের মধ্যে তেমন একটা উৎসাহ-উদ্দীপনা ছিল না। নির্বাচনের দিন যতই ঘনিয়ে আসছে ততই ভোটারের উৎসাহ-উদ্দীপনা বাড়ছে। অবাধ, সুষ্ঠু নির্বাচনের পরিবেশ আশা করছে ভোটারেরা।

এ আসনে আখতার হামিদ সিদ্দিকী একাধিক বার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন। ২০০১ সালের নির্বাচনে বিএনপি সরকার গঠন করলে আখতার হামিদ সিদ্দিকী নান্নু জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পীকার নির্বাচিত হন। একারণে নওগাঁ-৩ আসনটি ভিআইপি আসন বলে পরিচিতি পায়। ২০০৮ সালের নির্বাচনে বিএনপির দলীয় ভিআইপি প্রার্থী সাবেক ডেপুটি স্পীকার আখতার হামিদ সিদ্দিকী আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী মানবাধিকার ব্যক্তিত্ব ড. আকরাম হোসেন চৌধুরীর কাছে পরাজিত হন। ২০১৪ সালের নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী ছলিম উদ্দিন তরফদারের কাছে আওয়ামীলীগের দলীয় প্রার্থী ড. আকরাম হোসেন চৌধুরী হেরে যান। সেই সময় দলীয় সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করে প্রার্থী হওয়ায় ছলিমউদ্দিন তরফদারকে দল থেকে বহিস্কারও করা হয়েছিল। পরে তাকে দলে ফিরিয়ে নেওয়া হয়। বর্তমান তিনি মহাদেবপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি।

এবার ছলিম উদ্দিন তরফদার আওয়ামীলীগের দলীয় মনোনয়ন পেয়ে নওগাঁ-৩ আসনে নৌকা প্রতীকে লড়ছেন। সাবেক ডেপুটি স্পীকার আখতার হামিদ সিদ্দিকী নান্নু প্রয়াত হওয়ায় তার ছেলে পারভেজ আরেফিন সিদ্দিকী জনি বিএনপির দলীয় মনোনয়ন পেয়ে ধানের শীষ প্রতীকে লড়াই করছেন। পারভেজ আরেফিন সিদ্দিকী তার বাবা সাবেক ডেপুটি স্পীকার আখতার হামিদ সিদ্দিকীর পরিচয়ে নির্বাচনে ভোটাদের সহানুভূতি পাচ্ছেন।

সাংসদ ছলিমউদ্দিন তরফদার এলাকায় দৃশ্যমান উন্নয়ন করেছেন। তিনিও ভোটারদের সহানুভূতি পাচ্ছেন। দুটি দলের প্রার্থী, নেতা-কর্মী ও সমর্থকেরা প্রচার-প্রচারণায় ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন। শেষ মহুর্তে এ আসনে নির্বাচনী প্রচারনা জমে উঠেছে।

মহাদেবপুর উপজেলার কচুকুড়ি গ্রামের বাসিন্দা হায়দার আলী বলেন, এ আসনে মূলত নৌকা আর ধানের শীষের মধ্যে বরাবর প্রতিদ্বন্দিতা হয়ে আসছে। এবারও তাই হবে।

বদলগাছী উপজেলার বিলাশবাড়ি গ্রামের বাসিন্দা হেলাল হোসেন বলেন, নির্বাচনের প্রথম দিকে তেমন উৎসাহ-উদ্দীপনা ছিল না। এখন জমজমাট প্রচার প্রচারনা চলছে। শেষ পর্যন্ত নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু হবে বলে মনে করছেন তিনি।

আওয়ামী লীগের প্রার্থী ছলিমউদ্দিন তরফদার বলেন, নৌকার জোয়ার বইছে। উন্নয়নের ধারা অব্যহত রাখতে নৌকাকে বিজয়ী করতে হবে এবং তিনি বিপুল ভোটে জয়লাভের আশাবাদ ব্যক্ত করেন। কারণ হিসাবে তিনি বলেন, এরআগে এ আসনে যারা সাংসদ ছিলেন তাদের চেয়ে অনেক বেশি উন্নয়ন করেছি। কাজেই জয়ের ব্যাপারে আমি শতভাগ আশাবাদী।

পারভেজ আরেফিন সিদ্দিকী বলেন, নির্বাচনের মাঠ সমতল নয়। আমাদের প্রচার-প্রচারণায় বিভিন্নভাবে বাঁধা দেওয়া হচ্ছে। যদি অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ ভোট হয় তাহলে বিপুল ভোটের ব্যবধানে বিজয়ী হবো। মহাদেবপুর-বদলগাছী উপজেলায় উন্নয়নে আমার বাবার যে স্বপ্ন ছিল সেটি বাস্তবায়ন করব।

সব সময় আপডেট নিউজ পেতে আমাদের সাথেই থাকুন- সবুজ বিডি ২৪

সংবাদটি শেয়ার করুন:

© All rights reserved © 2018-2019  Sabuzbd24.Com
Design & Developed BY Sabuzbd24.Com